নিম্ন চাপের প্রভাবে সারা দেশে বৃষ্টিপাত: জনদুর্ভোগ

সারা দেশে বৃষ্টিপাতস্টাফ রিপোর্টার :: দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে রাজধানীসহ সারা দেশে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। নিম্ন চাপের প্রভাবে সারা দেশেই বৃষ্টিপাত হচ্ছে। ভারি বর্ষণের সঙ্গে দিনভর টানা বর্ষণে তলিয়ে গেছে রাজধানীর অনেক সড়ক।

শুক্রবার ছুটির দিন হওয়ায় মানুষ ঘর থেকে কম বের হলেও যারা বের হয়েছেন তাদের দুর্ভোগে পড়তে হয়েছে। সারা দেশে বৃষ্টি হলেও রাজধানী ঢাকায় সবচেয়ে বেশি বৃষ্টি হয়েছে।

এতে রাস্তায় পানি জমে যাওয়ায় কোথাও কোথাও তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়। রাস্তায় জলজটের মধ্যে গাড়ি চালাতে গিয়ে কোথাও কোথাও গাড়ির স্টার্ট বন্ধ হয়ে যাওয়ার ঘটনাও ঘটেছে।

বৈরী আবহাওয়ার কারণে রাজধানীর সদরঘাটসহ সারা দেশের ছোট লঞ্চ ছাড়তে নিষেধ করেছে বিআইডব্লিউটিএ।

উপকূলীয় এলাকা হাতিয়া, বেতুয়া ও রাঙ্গাবালিতে সব ধরনের লঞ্চ চলাচল বন্ধ।

আবহাওয়া অফিস বলছে, শুক্রবার সকাল ৬টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত ৭৬ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। সাগর উত্তাল থাকায় শুক্রবার সমুদ্র বন্দরগুলোতে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত জারি করা হয়।

আবহাওয়া অফিস বলছে, গত ৩ দিন ধরে ঢাকাসহ সারা দেশেই এ বৃষ্টিপাত হচ্ছে। শনিবার থেকে বৃষ্টিপাত কিছুটা কমলেও আগামী ৫ দিন বৈরী আবহাওয়া চলতে পারে।

আবহাওয়া অফিস বলছে, শুক্রবার নিম্নচাপটি পশ্চিম মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসলগ্ন উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছিল। আজও ঢাকা, ময়মনসিংহ, রংপুর, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় অস্থায়ী দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ সহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারি থেকে অতি ভারি বর্ষণ হতে পারে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ইতিমধ্যে জোয়ারের পানিতে কিছু কিছু বাড়িঘর ভেসে গেছে। বাড়েরহাট জেলার শরণখোলা উপজেলায় সিডর আক্রান্তদের জন্য তৈরি বেশ কিছু বাড়িঘর জোয়ারের পানিতে নিমজ্জিত হয়েছে ।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিএ) নৌ নিরাপত্তা বিভাগের পরিচালক মো. আবু জাফর হাওলাদার বলেন, সমুদ্রে তিন নম্বর ও অভ্যন্তরীণ নৌপথে দুই নম্বর সংকেত থাকায় ৬৫ ফুটের কম দৈর্ঘ্যরে নৌযান চলাচল বন্ধ রাখতে বলা হয়েছে।

এদিকে রাজধানীর সঙ্গে বিভিন্ন অঞ্চলের যোগাযোগ ব্যবস্থা ব্যাহত হচ্ছে। ফেরি চলাচলও হুমকির মুখে। বাগেরহাটের প্রায় ৫ শতাধিক ঘের ভেসে যাওয়ায় কৃষকরা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন।

আবহাওয়া অধিদফতরের আবহাওয়াবিদ মুহাম্মদ আবুল কালাম জানিয়েছেন, শনিবার থেকে বৃষ্টিপাত কিছুটা কমলেও আগামী ৫ দিন পর্যন্ত বৈরী আবহাওয়া অব্যাহত থাকতে পারে।

শুক্রবার নিম্নচাপটি কেন্দ্রের ৪৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া আকারে ৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। সাগর উত্তাল রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

সাড়ে ছয় হাজার স্বেচ্ছাসেবী সমিতিকে ৯ কোটি টাকার অনুদান

সাড়ে ছয় হাজার স্বেচ্ছাসেবী সমিতিকে ৯ কোটি টাকার অনুদান

স্টাফ রিপোর্টার :: ১৯৭৮ সাল থেকে মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর নারীদেরকে অর্থনৈতিক ভাবে ...