ব্রেকিং নিউজ

নারীরা ব্যবসায়িদের নেতৃত্বে আসবে: ইউনাইটেড নিউজকে মনোয়ারা হাকিম

মনোয়ারা হাকিম আলী    রবীন্দ্র নাথ পাল :: চিটাগাং উইমেন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রীজের সভাপতি মনোয়ারা হাকিম আলী সিআইপি মর্যাদায় দেশের একজন প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী।  জেনেটিকা বাংলাদেশ লিমিটেড, গ্লোবাল ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট সার্ভিস  ও ইন্ট্রাকো(বিডি) এর চেয়ারম্যান, হোটেল আগ্রাবাদ ও ইন্ট্রাকো গ্রুপের ভাইস-চেয়ারম্যান ছাড়াও ১৪/১৫টি বড় ব্‌ড় ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করছেন। সার্ক চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রী’র সহ-সভাপতি। বর্তমান এফবিসিসিআই এর প্রথম সহ-সভাপতি পদে নির্বাচিত প্রতিনিধি মনোয়ারা হাকিম আলী। ব্যক্তিগত জীবনে সদালাপী ও নিরহংকারী এই ব্যবসায়ী  ইউনেস্কো এ্যাওয়ার্ড ও মহাত্মা গান্ধী শান্তি পুরষ্কারে ভূষিত হয়েছেন। দেশ-বিদেশে অর্ধশতাধিক সম্মাননা পেয়েছেন। এবারের এফবিসিসিআই এর নির্বাচনে  মনোয়ারা হাকিম আলী সভাপতি পদে লড়তে যাচেছন। ব্যবসায়ীদের মিনি পার্লামেন্ট বলে পরিচিত এফবিসিসিআই এ তিনি নির্বাচিত হলে প্রথম ব্যবসায়ী নারী যিনি এ পদে অধিষ্ঠিত হবেন। তার আত্মাবিশ্বাসও প্রচন্ড । প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ন এ নির্বাচনে সন্মানিত ভোটারদের ভোটে তিনি বিজয়ী হয়ে ইতিহাস গড়ার প্রত্যাশা করেন । ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম এর পক্ষ থেকে লিখিতভাবে তার সাক্ষাতকারটি নিয়েছেন রবীন্দ্র নাথ পাল।

 

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: এফবিসিসিআইকে মিনি পার্লামেন্ট বলা হয়। আপনিই সম্ভবত দেশের ইতিহাসে ১ম নারী যিনি এফবিসিসিআই’র সভাপতি পদে নির্বাচন করতে যাচ্ছেন।

মনোয়ারা হাকিম আলী: এফবিসিসিআই কে ব্যবসায়ীদের মিনি পার্লামেন্ট বলা হয়।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: দেশের প্রধানমন্ত্রী, বিরোধীদলীয় নেত্রী ও ২০ দলীয় জোট নেত্রী নারী। এফবিসিসিআই নির্বাচনে সভাপতি পদে নির্বাচিত হলে আপনিই হবেন ব্যবসায়ী এ সংগঠনের শীর্ষ কর্মকর্তা। ‘রাজনীতি’র হরতাল আর অবরোধে ব্যবসায়ীরাই সবচেয়ে বেশী ক্ষতিগ্রস্থ হন, অনুরূপ অবস্থায় আপনি নির্বাচিত হলে এ সমস্যার সমাধান করবেন কিভাবে?

মনোয়ারা হাকিম আলী: ব্যবসা যেমন ব্যবসায়ীদের অধিকার তেমনি হরতাল যারা রাজনীতি করেন তাদেরও রাজনৈতিক প্রতিবাদের গণতান্ত্রিক অধিকার, তবে এটার পরিবর্তন হওয়া উচিত। জনদুর্ভোগ সৃষ্টি কারী এবং দেশের অর্থনীতি ধ্বংসকারী হরতাল পরিহার করে অন্যকোন মাধ্যমে গণতান্ত্রিক প্রতিবাদ হওয়া উচিৎ।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: আপনার প্রতিদ্বন্দ্বী কেউ মাঠে নেমে চট্রগ্রাম ও ময়মনসিংহে চেম্বার নেতৃবৃন্দের সাথে মতবিনিময় করে গ্রাউন্ড ওয়ার্ক করছেন। সে তুলনায় আপনার প্রচার-প্রচারনা পরিলক্ষিত হচ্ছে না-এর কারন কি?

মনোয়ারা হাকিম আলী: গত ৪ বছর এফবিসিসিআইএ সম্পৃক্ত হয়ে সারা দেশের ব্যবসায়িদের সাথে কাজ করার সুযোগ হয়েছে আমার। ভোটারদের প্রতি আমার আস্থা আছে, আমি সময়মতো নির্বাচনি আচারন বিধি মেনে প্রচার প্রচারনা শুরু করবো।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: দেশে প্রায় ৪ কোটি ব্যবসায়ী আছেন। এরমধ্যে ব্যবসায়ী নারীর সংখ্যা তুলনামুলক অনেক কম। আপনি নির্বাচিত হলে ব্যবসায়ী নারীর সংখ্যা বাড়বে কি ?

মনোয়ারা হাকিম আলী    মনোয়ারা হাকিম আলী: আমি তৃনমূল থেকে বাংলাদেশের নারী উদ্যোক্তাদের উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি নিয়েই এফবিসিসিআইতে এসেছি। আমাদের সামাজিক প্রেক্ষাপটে নারীদের জন্য ব্যবসা অত্যন্ত উপযোগী। ঘরকন্যার কাজের পাশাপাশি নারীরা খুব স্বাচ্ছন্ধে তাদের ব্যবসা পরিচালনা করতে পারে। এছাড়া সরকারের নারী উদ্যোক্তাবান্ধব নীতির ফলে সরকারী বেসরকারী সকল সংস্থা বর্তমানে নারী উদ্যোক্তাদের সহযোগিতায় এগিয়ে এসেছে। যার ফলে বর্তমানে দেশে নারী উদ্যোক্তাদের জন্য একটি সুন্দর পরিবেশ সৃষ্টি হচ্ছে বলে আমি মনে করি।

এক সময়ে নারীরা ব্যবসাই করত না। এখন উল্লেখযোগ্যহারে নারীরা ব্যবসা-বাণিজ্যে সম্পৃক্ত হচ্ছে। আগামীতে নারীরা ব্যবসায়িদের নেতৃত্বে আসবে। এটা সময়ের ব্যাপার। আমি নির্বাচিত হলে নতুন উদ্যোক্তা সৃষ্টি, উদ্যোক্তা নারীর উন্নয়ন ও নারী নেতৃত্ব বিকাশে সব ধরনের পদক্ষেপ গ্রহন করবো।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: এফবিসিসিআই সভাপতি পদে সরকারের নেপথ্য সমর্থন ছাড়া সভাপতি নির্বাচিত হওয়া যায় না বলে মনে করা হয়। আপনি সরকারের তরফ থেকে সে রকম কোন ঈঙ্গিত পেয়েছেন কি না?

মনোয়ারা হাকিম আলী: নারীদের কল্যানে বর্তমান সরকার একটি নীতিমালা তৈরী করেছেন। সরকার নারীর ক্ষমতায়নে বিশ্বাসী। নারীবান্ধব এমন সরকার থাকলে নারীরা অবশ্যই এগিয়ে যাবে। তাই নারী প্রার্থী হসিবে আমি অনেকেরচেয়ে এগিয়ে আছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী গণতন্ত্রের মানস কন্যা শেখ হাসিনা সবসময় বলনে- যকোনো বিষয়ে সফলতা অর্জন করত হল অবশ্যই চষ্টো করত হব; আমি সে অনুযায়ী এগুচ্ছি। আমরা সরকারের তরফ থেকে সব ধরনের সহযোগিতা পাব।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: চেম্বার ও এ্যাসোসিয়েশন মিলে খসড়া ভোটার তালিকায় ২১১৭ জন সদস্য। তাদের অধিকাংশই পুরুষ। নির্বাচনে তাদের ভোট পাবার সম্ভাবনা আপনার কতটুকু?

মনোয়ারা হাকিম আলী: আমি আগেই বলেছি বিগত ২ বার আমি সরাসরি ভোটে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করে নির্বাচিত হয়েছি সুতরাং এবারো আমি আশাবাদি পুরুষ ভোটারদের ভোটে নির্বাচিত হবো।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: এখন পর্যন্ত সভাপতি পদে একজন শক্তিশালী প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে আছেন নিটল টাটা গ্রুপের চেয়ারম্যান আব্দুল মাতলুব আহ্‌মদ। নির্বাচন হলে উনাকে পরাজিত করে আপনি বিজয়ী হবার সম্ভাবনা কতটুকু?

মনোয়ারা হাকিম আলী: নির্বাচনি মাঠে প্রতিপক্ষ থাকবেই সেক্ষেত্রে আমি আমার ভোটারদের উপর শতভাগ আস্থাশীল।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: আপনি বর্তমান পরিচালনা-পরিষদের প্রথম সহ-সভাপতি। বিগত এফবিসিসিআই নির্বাচনের পর আপনাদেরকে ময়মনসিংহ টাউনহলে বিরাট সংবর্ধনা দেয়া হয়। তখন বর্তমান সভাপতি ব্যবসায়ীদের স্বার্থরক্ষা, ঋণের সুদ এক অংকে নামিয়ে আনা ও ময়মনসিংহের ভালুকায় একটি ইন্ডাষ্ট্রিয়াল-পার্ক গড়ে তোলা হবে বলে আশ্বাস দিয়েছিলেন। অথচ গত দু বছরে আমরা এসবের কিছুই পেলাম না। সে হিসেবে বর্তমান পরিচালনা পর্ষদ ব্যর্থ কি না? যদি ব্যর্থ হয় এর দায় আপনি কি এড়াতে পারেন? আপনি নির্বাচিত হলে ভালুকায় ইন্ডাষ্ট্রিয়া-পার্ক হবে কি?

মনোয়ারা হাকিম আলী: সফলতা ব্যার্থতার বিচার করবেন দেশের ব্যবসায়ী সমাজ। তবে এই বিষয়ে একটি কথা বলতে চাই যে কোন পরিকল্পনা বাস্তবায়নে সময়ের প্রয়োজন। আমাদের অসমাপ্ত কাজ গুলো পরবর্তীতে নিশ্চয়ই বাস্তবায়িত হবে।

মনোয়ারা হাকিম আলী    ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: অনেক সময় সরকারের সাথে বনিবনা না হওয়ায় ব্যবসায়ী সমাজকে ক্ষতিগ্রস্থ হতে দেখা যায়। এমনটি ঘটলে এক্ষেত্রে ক্ষতিগ্রস্থ ব্যবসায়ীদের পক্ষে আপনি কি ভুমিকা পালন করতে পারবেন?

মনোয়ারা হাকিম আলী: যেকোন বিষয়ে সরকারের সাথে মনোমালিন্য হতেই পারে সে ক্ষেত্রে ব্যবসায়ীদের সার্থের পক্ষে সব ধরনের ভুমিকা রাখবো।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: গত ৩১ মার্চ প্রথমআলো পত্রিকায় ভোটার তালিকায় অনিয়মের অভিযোগ প্রকাশিত হয়েছে। এটা কি ঠিক?

মনোয়ারা হাকিম আলী: নির্বাচন পরিচালনার জন্য একটি শক্তিশালী ও স্বচ্ছ বোর্ড গঠন করা হয়েছে। ভোটার তালিকায় অনিয়ম দেখার দায়িত্ব সম্পুর্ন তাদের।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: প্রধানমন্ত্রীর সাথে আপনার দেখা করার কথা। উনার সাথে দেখা বা কথা হয়েছে কি না। দেখা হলে উনি আপনাকে আশ্বস্থ করেছেন কি-না? এফবিসিসিআই প্রসঙ্গ ছাড়া রাজনৈতিক বা অন্য কোন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে কি না?

মনোয়ারা হাকিম আলী: লিখিত এ প্রশ্নের তিনি কোন উত্তর দেননি।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: আপনার মোট কতগুলো শিল্প প্রতিষ্ঠান আছে এবং সেসব প্রতিষ্ঠানে আপনি কি দায়িত্বে আছেন।

মনোয়ারা হাকিম আলী: সিআইপি মর্যাদা পাওয়া মনোয়ারা হাকিম আলী ব্যবসায়ী জীবনে জেনেটিকা বাংলাদেশ লিমিটেড,  গ্লোবাল ইভেন্ট ম্যানেজম্যান্ট সার্ভিস ও ইন্ট্রাকো (বিডি) লিমিটেড এর চেয়ারম্যান। ভাইস-চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন ইন্ট্রাকো গ্রুপ, হোটেল আগ্রাবাদ, ট্যুরিজম ইন্টারন্যাশনাল, বাটার ফ্লাই পার্ক লিমিডেট, আল- মোস্তফা ব্রেড অ্যান্ড বিস্কুট ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড, আলট্রা ফার্মা লিমিটেড, ট্র্যাভেল শপ লিমিটেড এর। এছাড়া মেট্টিক সেলুলার ইন্টারন্যাশনাল সার্ভিসেস লিমিটেড এবং মদিনা ইনডেন্টিং লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালকও তিনি। এছাড়া সার্ক চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি এর সহ-সভাপতিসহ বেশ কয়েকটি পেশাগত, সামাজিক বাণিজ্য সংগঠনের সঙ্গে জড়িত প্রতিষ্ঠিত এই নারী। দীর্ঘ কর্মজীবনে সফলতার স্বীকৃতি হিসেবে ইউনেস্কো এ্যাওয়ার্ড, মাহাত্মাগান্ধী শান্তি পুরস্কারসহ দেশ-বিদেশের প্রায় অর্ধশত সম্মাননাও জমা হয়েছে তার ঝুলিতে।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: এফবিসিসিআইতে প্রথম নারী যিনি সভাপতির পদ অলংকৃত করতে যাচ্ছেন এবং এটা দেশের ইতিহাসে স্বর্নাক্ষরে লেখা থাকবে-এ মতের সাথে আপনি কি একমত?

মনোয়ারা হাকিম আলী: সবার দোয়া, সহযোগিতা ও সর্মথন নিয়ে ইনশাআল্লাহ আগামী নির্বাচনে আমি বিজয়ী হতে পারবো এবং দেশের ব্যবসায়িদের উন্নায়নে কাজ করার সুযোগ পাবো।

ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম: আপনাকে অনলাইন নিউজ পোর্টাল ইউনাইটেড নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম এর পক্ষ থেকে অনেক ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা ।

মনোয়ারা হাকিম আলী: আপনাদেরও ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা রইলো।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

জুলিয়া সুকায়না পাইকগাছার প্রথম নারী ইউএনও

জুলিয়া সুকায়না পাইকগাছার প্রথম নারী ইউএনও

মহানন্দ অধিকারী মিন্টু, পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি :: খুলনার পাইকগাছায় প্রথম নারী উপজেলা ...