ডিসিসি নির্বাচন হবে নতুন ইসির অধীনে: আশরাফ

নতুন নির্বাচন কমিশনের অধীনে ১৮০ দিনের মধ্যে বিভক্ত ঢাকা সিটি করপোরেশনের নির্বাচন (ডিসিসি) করা হবে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকারমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম।

তিনি বলেন, বর্তমান কমিশনের মেয়াদ শেষ হয়ে আসায় তারা নির্বাচন করতে অসম্মতি জানিয়েছে। নতুন নির্বাচন কমিশন দায়িত্ব নিলে ডিসিসি আইনের মধ্য দিয়েই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

মঙ্গলবার রাজধানীর আগারগাঁওয়ে ৩৫টি পৌরসভার মেয়রদের মধ্যে আবর্জনাবাহী গাড়ি বিতরণ অনুষ্ঠানে সৈয়দ আশরাফ এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বিভিন্ন সীমাবদ্ধতার কারণে বর্তমান কমিশনের অধীনে এই নির্বাচন করা সম্ভব হচ্ছে না। কিন্তু বিভক্ত ডিসিসির জন্য যে আইন প্রণয়ন করা হয়েছে, তাতে বলা হয়েছে, আইন অনুযায়ী ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন করা সম্ভব না হলে পরবর্তী ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন করা যাবে।

নির্বাচন কমিশনের কাজ নির্বাচন করা উল্লেখ করে আশরাফ আরো বলেন, কমিশনের নির্বাচন করা হ্যাঁ বা না বলার কোনো অধিকার নেই। তাদের একমাত্র কাজই হলো নির্বাচন করা।

তিনি বলেন, ঢাকাকে কোনো কাটা তারের বেড়া দিয়ে ভাগ করা হচ্ছে না। ঢাকার একপ্রান্ত থেকে অন্যপ্রান্তে যেতে ভিসা বা পাসপোর্টেরও দরকার হবে না।

আওয়ামী লীগের এই সাধারণ সম্পাদক বলেন, পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে স্থানীয় সরকার ব্যবস্থাকে বিকেন্দ্রীকরণ করা হচ্ছে। লন্ডনের সরকার ব্যবস্থাকে ছয় ভাগে বিকেন্দ্রীকরণ করা হয়েছে। নিউইয়র্কের সরকার ব্যবস্থাকে পাঁচ ভাগে বিকেন্দ্রীকরণ করা হয়েছে।

সম্প্রতি দিল্লিকে তিন ভাগে বিকেন্দ্রীকরণ করা হয়েছে। ভবিষ্যতে প্রশাসনিকভাবে ঢাকার আরো পুনর্বিন্যাস করা হবে বলেও জানান তিনি।

উল্লেখ্য, গত ২৯ নভেম্বর ঢাকা সিটি করপোরেশনকে বিভক্ত করে জাতীয় সংসদে আইন পাস হয়। নতুন আইন অনুযায়ী ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে ৫৬ এবং ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে ৩৬টি ওয়ার্ড রয়েছে। ১ ডিসেম্বর এ সংক্রান্ত গেজেটও প্রকাশ করা হয়।

ইউনাইটেড নিউজ ২৪ ডট কম/ঢাকা

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

বাংলাদেশের উন্নয়নে ভারতের সহযোগিতা চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

ষ্টাফ রিপোর্টার ::  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের উন্নয়নে ভারতের অব্যাহত সাহায্য এবং ...