ব্রেকিং নিউজ

চরফ্যাশনে বিত্তশালীরা পাচ্ছেন ১০ টাকার চাল, বঞ্চিত হতদরিদ্ররা

চরফ্যাশন: ১০ টাকা কেজিতে চাল বিক্রির সরকারি কার্যক্রম হতদরিদ্রদের জন্য হলেও তালিকায় মৃত ব্যক্তি, সরকারি স্কুলের শিক্ষক, ইউপির সদস্য, ডিলার, নিকাহ রেজিষ্টার (কাজী) শ্রমীকলীগের সভাপতি ও ধনাঢ্য ব্যক্তিদের নামের তালিকায় অর্ন্তভূক্তি করা হয়েছে। ।

cfdfdসুবিধাভোগীদের তালিকা তৈরিতেও রাজনৈতিক হস্তক্ষেপ করা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। তাই হতদরিদ্র অনেক পরিবার এই সুবিধা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।

জানা যায়,নীলকমল ৩নং ওয়ার্ডের সিরিয়ালনং ৪২২ আছমত আলী, ৩৭৯ নং আবুল কাশেম মৃত্যু হয়েও নামের তালিকাভূক্তি হয়েছে। ৫নং ওয়ার্ডের ইউপির সদস্য নুর মোহাম্মদ সিরিয়ালনং ২৬২, তার স্ত্রী সিরিয়ালনং ২৫৪ সাহিদা বেগম। ২নং ওয়ার্ডের ইউনাইটেড কলেজের শিক্ষক মাকসুদুর রহমান সিরিয়ালনং ২৭৬, মুন্সিরহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ৩নং ওয়ার্ডের সিরিয়ালনং ২৩১ হুমায়ুন কবির, হামেলা খাতুন মহিলা মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক ও নিকাহ রেজিস্টার আলহাজ্জ আবু ইকবাল ইলিয়াছ কাজী, তার স্ত্রী একই প্রতিষ্ঠানের সহকারী শিক্ষিকা হয়েও হতদরিদ্রদের ১০টাকা মূল্যের চাউলের তালিকায় অর্ন্তভূক্তি হয়েছেন।

নীলকমল শ্রমীকলীগের সভাপতি ৩৩৩ সিরিয়ালে রফিক মিকার, জাতীয় পরিচয়পত্রে নাম নেই ঢাকায় থাকেন ৪নং ওয়ার্ডের আবুল কালাম, চরকম্নকরী-মুকরীর মৎস্য আড়ৎদার ৫নং ওয়ার্ডের ২০৯ সিরিয়ালের শাহে আলমসহ তার ছেলেসহ পরিবারের ৩ জনই কার্ড পেয়েছে।

এ ছাড়াও যিনি চাল বিতরণ করবেন সামছুদ্দিন ডিলার ও তার ভাই শাহবুদ্দিন ৯নং ওয়ার্ড নামের তালিকায় অর্ন্তভূক্তি হয়েছে। ১নং ওয়ার্ডের সাবেক ইউপির সদস্য সিরিয়ালনং ১২৫ আবদুল বারেক মুসলিস্নর পরিবারের ৬ জনের তালিকায় নাম রয়েছে। তারা হলেন, ভাই সিরিয়াল নং ১২৭ জয়নাল আবেদীন, ১২৮ ছেলে ফারুক, ১২৯ ভাতিজা রফিক, ১২৪ কমলা বিবি, ১৩৩ ছেলে নাসিম।

ইউনিয়ন পরিষদের তালিকা প্রণয়কারী কমিটির সদস্য ও নীলকমল ইউপির ১নং ওয়ার্ড সদস্য শাহবুদ্দিন জানেনা তার ওয়ার্ডের নামের তালিকা তৈরী করেন ২নং ওয়ার্ডের ইউপির সদস্য কর্তৃক স্বাক্ষর করে উপজেলা খাদ্য অফিসে জমা দেয়া হয়েছে।

নীলকমল ইউপির আনসার ভিডিপির টিম লিডার শাহাবুদ্দিন জানান, সরকারি প্রজ্ঞাপনে রয়েছে শতকরা ১৫ ভাগ আনসার ভিডিপির জন্যে নির্ধারিত রয়েছে। মোট ১৬৬৪ নামের মধ্যে আমরা ২৫২ নাম পাব। আমাদের কোন নাম রাখা হয়নি। আমিও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট অভিযোগ দায়ের করেছি।

অনেক ভুক্তভোগী পরিবার ও ইউপি সদস্যরা অভিযোগ করেছেন, রাজনৈতিক বিবেচনায় আওয়ামী লীগের লোকজনকে ডিলারশিপ দেওয়ার কারণে অনিয়ম হচ্ছে।
এব্যাপারে অভিযুক্ত নীলকমল ইউপির চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন লিখনের মুঠোফোন বন্ধ থাকায় বার বার চেষ্টা করেও তার বক্তব্য নেয়া সম্ভাব হয়নি।

তালিকা প্রনয়ণ কমিটির সদস্য সচিব ও ইউপির সচিব আরিফুর রহমান জানান, এই তালিকা তৈরী করেছে মেম্বারা যদি কোন সমস্যা থাকে তবে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিসে অভিযোগ করতে হবে । কোন তালিকায় সমস্যা হলে তা বাদ দেয়া হবে।

এব্যপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মনোয়ার হোসেন জানান, এই নামের তালিকা গুলো চেয়ারম্যানকে ঠিক করে দেয়ার জন্যে নিন্দেশনা দেয়া হবে। তবে

কোনোভাবেই সরকারি কর্মকর্তা, বিদ্যালয়ের শিক্ষক, ইউপি সদস্য ও অবস্থাপন্ন ব্যক্তিদের নাম এই তালিকায় থাকার সুযোগ নেই।যদি প্রমানিত হয় এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

ইউনাইটেডনিউজ/ডেস্ক৩/অব/শিপুফরাজী

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

দাঁড়িয়ে থাকা সিএনজিতে ট্রাকের ধাক্কা, নিহত ৪

ষ্টাফ রিপোর্টার :: চট্টগ্রামের মীরেরসরাইয়ে দাঁড়িয়ে থাকা দুটি সিএনজির অটোরিকশাতে ট্রাকের ধাক্কায় ...