আমাকে আগে চিকিৎসা দিয়ে বাঁচানোর চেষ্টা করুন, পরে বিচার

ষ্টাফ রিপোর্টার :: কারাবন্দি বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া বলেছেন, আমাকে আগে বাঁচানোর চেষ্টা করুন। আগে আমার চিকিৎসা দরকার। আমার অবস্থা খুব খারাপ। আগে চিকিৎসা, পরে বিচার।
আমার এই  অবস্থায় ২৪ ঘণ্টার মধ্যে বিশেষায়িত কোনো হাসপাতাল কিংবা ইউনাইটেড হাসপাতালে ভর্তি করার জন্য সরকারকে বলুন। তা না হলে হাত, পা প্যারালাইজড হয়ে যেতে পারে।
গতকাল শুক্রবার রাজধানীর নাজিম উদ্দিন রোডের পুরানো কেন্দ্রীয় কারাগারে তার চার আইনজীবী দেখা করতে গেলে খালেদা জিয়া তাদের এসব কথা বলেন। বিকাল পাঁচটার দিকে খালেদা জিয়ার চার আইনজীবী অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন, ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, এজে মোহাম্মদ আলী ও আব্দুর রেজ্জাক খান কারাগারে প্রবেশ করেন। প্রায় এক ঘণ্টা সাক্ষাৎ শেষে সন্ধ্যা ৬টার দিকে বেরিয়ে আসেন তারা।
সাক্ষাৎ শেষে অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন বলেন, সাক্ষাতে খালেদা জিয়া আমাদের বলেছেন- ‘আগে আমাকে (উনাকে) বাঁচানোর চেষ্টা করুন। আগে আমার (উনার) চিকিৎসা দরকার।’ তিনি উঠতে পারছেন না। খুবই খারাপ অবস্থা।
জয়নুল আবেদীন বলেন, সাক্ষাতে ম্যাডামকে (খালেদা জিয়া) আমরা যেভাবে দেখেছি তাতে তিনি কীভাবে আগের দিন আদালতে এসেছেন সেটা নিয়ে ভাবছি।
তিনি বলেন, আমরা দাবি করি আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে তাকে বিশেষায়িত হাসপাতালে নেওয়া হোক। ইউনাইটেড, অ্যাপোলো বা যে কোনো বেসরকারি বিশেষায়িত হাসপাতালে ভর্তি করা হোক। আগে তার চিকিৎসা, পরে বিচার। খালেদা জিয়ারও বিচার পাওয়ার অধিকার রয়েছে।
জয়নাল আবেদীন কারাফটকের সামনে সাংবাদিকদের বলেন, ম্যাডাম বলেছেন আপনারা আইনগতভাবে মোকাবেলা করুন, আগে আমাকে বাঁচতে হবে। আমার চিকিৎসা দরকার। সরকারকে আমার চিকিৎসার ব্যবস্থা করতে বলেন। তারপর তারা বিচার করুক।
জয়নাল আবেদীন আরও বলেন, ম্যাডাম (খালেদা জিয়া) আমাদের বলেছেন, তিনি ট্রায়াল ফেস করতে প্রস্তুত কিন্তু আগে তার চিকিৎসা দরকার। তার শরীরের অবস্থা খুব খারাপ। কারাগারে তাকে তিলে তিলে ধ্বংস করা হচ্ছে।
জয়নুল আবেদীন বলেন, তার বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার আইনগত দিক দেখা যাবে, আগে তার চিকিৎসা করা দরকার। চিকিৎসার ব্যবস্থা না করা হলে তিনি পুরোপুরি প্যারালাইসড হয়ে যেতে পারেন। তার বাম চোখ ফুলে গেছে, চোখে ঝাঁপসা দেখছেন। কারা কর্তৃপক্ষকে তিনি অসুস্থতার কথা জানিয়েছেন। কিন্তু কারাগারে তার চিকিৎসা সম্ভব নয়। তাকে অবিলম্বে বিশেষায়িত কোনো হাসপাতাল- ইউনাইটেড বা অ্যাপোলো হাসপাতালে ভর্তি করার দরকার যদি তাকে বাঁচিয়ে রাখতে হয়।
কারাগারে মামলার বিচার সম্পার্কে আপনাদের কি পরামর্শ দিয়েছেন? জানতে চাইলে জয়নুল আবেদীন বলেন, মামলার বিষয়ে পরামর্শ হয়েছে। তিনি আমাদের বলেছেন, আপনারা আইনগতভাবে মোকাবেলা করুন, আগে আমাকে বাঁচতে হবে। আমার চিকিৎসা দরকার। দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন খালেদা জিয়া। তিনি বলেন, আমার চিকিৎসার ব্যবস্থা করতে বলেন। সরকারকে বলেন আগে চিকিৎসা করতে। তারপর তারা বিচার করুক।
খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করে তার আইনজীবী জয়নাল আবেদীন সাংবাদিকদের বলেছেন, খালেদা জিয়ার বাম চোখ ফুলে গেছে। এছাড়া তার বাম হাত তিনি নাড়াচাড়া করতে পারছেন না।
জয়নাল আবেদীন বলেন, খালেদা জিয়ার সারা শরীরে ব্যথা। অবিলম্বে তার চিকিৎসা দরকার।
জয়নাল আবেদীন বলেন, ম্যাডাম পরিস্কারভাবে বলেছেন- এ মামলা রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিত হয়ে করা হয়েছে এবং বিচার করা হচ্ছে। তিনি কথা বলতে পারছেন না। চোখে দেখতে পারছেন না। তার শরীর শুকিয়ে যাচ্ছে। তার অবস্থা খুব খারাপ! এ অবস্থায় কিভাবে আদালতে এনে তার বিচার করা হচ্ছে। আমরা ভাবিনাই বেগম খালেদা জিয়াকে এ অবস্থায় দেখব! প্রবীণ আইনজীবী ব্যারিস্টার জমীর উদ্দিন সরকারের সঙ্গে তিনি কথাই বলতে পারেননি। তিনি বলেছেন, ম্যাডাম এ অবস্থায় কিভাবে অপনার সঙ্গে কথা বলব।
Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

‘আমাকে এখনও কেন হাসপাতালে নেওয়া হচ্ছে না’

ষ্টাফ রিপোর্টার :: বিএনপি চেয়ারপারসন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া ৮ মাস ...